ঢাকা     ২২ এপ্রিল ২০২৪ ||  ৮ বৈশাখ ১৪৩১

Biz Tech 24 :: বিজ টেক ২৪

বিশ্ব মন্দায়ও বাড়ছে বাংলাদেশী পোশাকের চাহিদা

বিজটেক রিপোর্ট

প্রকাশিত: ১৮:২৪, ২৮ আগস্ট ২০২২

আপডেট: ২১:১৩, ২৮ আগস্ট ২০২২

বিশ্ব মন্দায়ও বাড়ছে বাংলাদেশী পোশাকের চাহিদা

বাংলাদেশের তৈরি পোশাকের সবচেয়ে বড় বাজার ইউরোপে বিশ্ব মন্দায়ও বাড়ছে ‘মেড ইন বাংলাদেশ’ পোশাকের চাহিদা। চলতি বছরের জানুয়ারি থেকে মে পর্যন্ত সময়ে ইউরোপীয় ইউনিয়নের বাজারে বাংলাদেশের তৈরি পোশাক পণ্য রপ্তানি বেড়েছে ৪৫ শতাংশ। এদিকে যুক্তরাষ্ট্রের বাজারেও বাংলাদেশের তৈরি পোশাক পণ্য রপ্তানি বেড়েছে ৬০ দশমিক ৩০ শতাংশ। টাকার অঙ্কে যা ৫০১ কোটি ৯০ লাখ ৭ হাজার ডলার।

ইউরোপীয় পরিসংখ্যান সংস্থা ‘ইউরোস্ট্যাট’ এই তথ্য প্রকাশ করেছে। যা রোববার তৈরি পোশাক মালিকদের সংগঠন বিজিএমইএ এ তথ্য জানিয়েছে ।

‘ইউরোস্ট্যাট’র পরিসংখ্যান মতে, চলতি বছরের প্রথম পাঁচ মাস বাংলাদেশ থেকে ইউরোপীয় ইউনিয়নের পোশাক পণ্য আমদানি ৪৪ দশমিক ৯৫ শতাংশ বেড়েছে। এসময় আমদানির পরিমাণ দাঁড়ায় ৯ দশমিক ৫৮ বিলিয়ন মার্কিন ডলারে।

একই সময়ে চীন থেকে ইউরোপীয় ইউনিয়নের পোশাক আমদানি বছরে ২০ দশমিক ৬৭ শতাংশ বৃদ্ধি পায়। তাতে আমদানির পরিমাণ ১০ দশমিক ১৯ বিলিয়ন মার্কিন ডলারে দাঁড়ায়।

এসময়ে অন্য দেশগুলোর মধ্যে কম্বোডিয়ার পণ্য রপ্তানি হয়েছে ৩২ দশমিক ৬৮ শতাংশ, পাকিস্তানের ২৯ দশমিক ২৮ শতাংশ, ইন্দোনেশিয়ার ২৫ দশমিক ৩৬ শতাংশ, ভিয়েতনামের ২২ দশমিক ৩৪ শতাংশ এবং মরক্কোর ২০ দশমিক ৫ শতাংশ পণ্য রপ্তানি হয়েছে।

এ বিষয়ে বিজিএমইএ’র পরিচালক ও মুখপাত্র মহিউদ্দিন রুবেল জানান, ইইউর এ আমদানির পরিসংখ্যান বুঝায় এখন পর্যন্ত ইইউ বাজারে বাংলাদেশের পোশাকের ভালো অবস্থান নির্দেশ করে। কিন্তু সাম্প্রতিক ভূ-রাজনৈতিক উত্তেজনার কারণে খুচরা বিক্রেতারা ক্রমবর্ধমান মুদ্রাস্ফীতি ও বিশ্ব বাজারের সঙ্গে খাপ খাইয়ে নিতে সংগ্রাম করছে। অনেক ইউরোপীয় ব্র্যান্ডের খুচরা বিক্রি কমে গেছে, যা তাদের ইনভেন্টরি স্টক বাড়িয়েছে। এসব কারণ বিবেচনা করে আগামী মাসগুলোতে ইইউ বাজারে আমাদের রপ্তানি কমানোর প্রবণতা দেখা যেতে পারে।

এর আগে চলতি মাসের শুরুতে ইউএস ডিপার্টমেন্ট অব কমার্সের অফিস অব টেক্সটাইল অ্যান্ড অ্যাপারেল (অটেক্সা) তথ্য প্রকাশ করেছে যে, যুক্তরাষ্ট্রের বাজারে বাংলাদেশের তৈরি পোশাক পণ্য রপ্তানি বেড়েছে ১৮৮ কোটি ৭৯ লাখ ৮ হাজার ডলার। যা শতাংশের হিসাবে ৬০ দশমিক ৩০ শতাংশ।

অটেক্সার তথ্যমতে, ২০২২ সালের জানুয়ারি থেকে জুন পর্যন্ত সময়ে যুক্তরাষ্ট্রের বাজারে বাংলাদেশের তৈরি পোশাক রপ্তানি হয়েছে ৫০১ কোটি ৯০ লাখ ৭ হাজার ডলারের। ২০২১ সালের একই সময়ে পোশাক পণ্য রপ্তানি হয়েছিল ৩১৩ কোটি ১০ লাখ ৯ হাজার ডলারের। সে হিসাবে ২০২১ সালের তুলনায় ২০২২ সালের একই সময়ে পোশাক পণ্য রপ্তানি বেড়েছে ১৮৮ কোটি ৭৯ লাখ ৮ হাজার ডলারের।