Biz Tech 24 :: বিজ টেক ২৪

শূন্যে ভেসে ঘণ্টায় ৬২০ কিলোমিটার গতিতে ছুটবে চীনের তৈরি ট্রেন

বিজটেক ডেস্ক

প্রকাশিত: ১৮:৩২, ১৮ জানুয়ারি ২০২১

শূন্যে ভেসে ঘণ্টায় ৬২০ কিলোমিটার গতিতে ছুটবে চীনের তৈরি ট্রেন

ঘণ্টায় ৬২০ কিলোমিটার বা ৩৮৫ মাইল গতিতে ছুটতে সক্ষম একটি নতুন ধরনের উচ্চগতির ম্যাগলেভ ট্রেনের প্রোটোটাইপ প্রকাশ করেছে চীন। বৈদ্যুতিক শক্তিতে চালিত ট্রেনটি খালি চোখে দেখলে মনে হবে যেন দানবাকার এক যান চৌম্বকীয় ট্র্যাকগুলোর উপর ভাসছে।

গত ১৩ জানুয়ারি সিচুয়ান প্রদেশের চেঙ্গদু শহরে ২১ মিটার (৬৯ ফুট) দীর্ঘ প্রোটোটাইপটি সাংবাদিকদের সামনে উন্মুক্ত করা হয়। ট্রেনটি কীভাবে চলবে এবং এটিতে চড়লে কেমন লাগবে সেটির বাস্তব অভিজ্ঞতা দিতে বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষকরা ১৬৫ মিটার (৫৪১ ফুট) ট্র্যাক নির্মাণ করে সেটির উপর ট্রেনটি চালিয়ে দেখিয়েছেন।  

কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, এই প্রযুক্তির ট্রেনে দুই সেট চুম্বক ব্যবহার করা হয়। এক সেট চুম্বক ট্রেনটিকে ট্র্যাক বা লাইন থেকে সামান্য উঁচুতে শূন্যে ভাসিয়ে রাখে, দ্বিতীয় সেট চুম্বক ট্রেনটিকে সামনের দিকে ঠেলে দেয়। ফলে সাধারণ ট্রেনের মতো এতে চাকা ও লাইনের মধ্যকার ঘর্ষণজনিত শক্তিক্ষয় থাকে না।

সাউথওয়েস্ট জিয়াওতাং ইউনিভার্সিটির ভাইস প্রেসিডেন্ট অধ্যাপক হি চুয়ান এই প্রটোটাইপটি নিয়ে কাজ করছেন। তিনি জানান, ট্রেনটি চালু করতে ৩-১০ বছর লাগতে পারে। তবে তার মতে, সিচুয়ানে রয়েছে দুর্লভ মৃত্তিকার (রেয়ার আর্থ) বিপুল সম্ভার।  ট্রেনটির জন্য স্থায়ী চৌম্বক ট্র্যাক নির্মাণে এগুলো কাজে লাগবে। ফলে ট্রেনটি প্রস্তুত করতে অনেক কম সময় লাগবে বলে আশা করছেন তিনি।

চীনে রয়েছে বিশ্বের বৃহত্তম হাই-স্পিড রেল নেটওয়ার্ক। এই নেটওয়ার্ক ৩৭ হাজার কিলোমিটারেরও বেশি পথ পর্যন্ত বিস্তৃত। বাণিজ্যিকভাবে পরিচালিত সবচেয়ে উন্নত হাইস্পিড ম্যাগলেভ ট্রেন রয়েছে সাংহাইতে। চীনের প্রথম হাই-স্পিড ম্যাগলেভ ট্রেন চালু হয় ২০০৩ সালে। ঘণ্টায় ৪৩১ কিলোমিটার বেগের এই ট্রেন সাংহাই পুদং বিমানবন্দর এবং সাংহাইয়ের পূর্ব দিকের লংগিয়াং সড়ক পর্যন্ত চলাচল করে।